1. [email protected] : mainadmin :
  2. [email protected] : special_reporter :
  3. [email protected] : subadmin :
বাংলার চোখ নিউজ | অনলাইন সংস্করণ | গেমিং ল্যাপটপের জন্য শিশু অপহরণ ও হত্যা, গ্রেফতার ৪
বুধবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২২, ০৪:২৬ অপরাহ্ন

গেমিং ল্যাপটপের জন্য শিশু অপহরণ ও হত্যা, গ্রেফতার ৪

বাংলার চোখ সংবাদ
  • সময়ঃ শনিবার, ৪ ডিসেম্বর, ২০২১

বশির আহম্মেদ মোল্লা :

নরসিংদীর রায়পুরায় পরিত্যাক্ত ধানের বীজতলা থেকে ইয়ামিন মিয়া (৮) নামে এক শিশুর গলিত মরদেহ উদ্ধার করার একদিন পর ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শনিবার (৪ ডিসেম্বর) ভোরে রায়পুরার উত্তর বাখরনগর ও পার্শ্ববর্তী এলাকা হতে তাদের গ্রেফতার করা হয়। হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত স্কচটেপ, বালিশ, মুঠোফোন এবং সিম আলামত হিসেবে উদ্ধার করা হয়েছে।

দুপুরে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানায়, নরসিংদী জেলা পুলিশ। এর আগে, গত ২৮ নভেম্বর থেকে ওই শিশু নিখোঁজ ছিলো এবং গত শুক্রবার (০৩ ডিসেম্বর)  সকালে উপজেলার উত্তর বাখরনগর ইউনিয়নের উত্তর বাখরনগর গ্রামের এক ডোবা থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ইয়ামিন মিয়া (৮) উত্তর বাখরনগর গ্রামের জামাল মিয়ার ছেলে।

গ্রেফতারকৃতরা হলো— সিয়াম উদ্দিন (১৮), রাসেল মিয়া (১৭), আসাদ মিয়ার ছেলে সুজন মিয়া (২৪), মৃত রাজা মিয়ার ছেলে কাঞ্চন মিয়া (৫৪) ।

প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে পুলিশ জানায়, ভারতীয় সিরিয়াল ক্রাইম পেট্রোল ও সিআইডি দেখে উদ্বুদ্ধ হয়ে গেমিং ল্যাপটপ কিনে ইউটিউবে গেম লোড করে টাকা উপার্জনের জন্য শিশু ইয়ামিনকে অপহরণের পরিকল্পনা করে দুই বন্ধু সিয়াম এবং রাসেল।  গত ২৮ নভেম্বর দুপুরে পূর্ব পরিকল্পনা মোতাবেক ইয়ামিনকে অপহরণ করে তারা। অপহরণ করে রাসেল ও সিয়াম মিলে তাকে সিয়ামের বাড়ির এক নির্জন রুমে হাত পা বেঁধে আটকে রাখে। সেদিনই মুঠোফোনে স্ক্রিপ্টেডবায়া এবং ভিপিএন এ্যাপস ব্যবহার করে ফোন করে ইয়ামিনের মায়ের কাছে ১০ লক্ষ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে তারা।  মুক্তিপণ না পেয়ে অপহরণের দিন রাতেই হাত পা বেধে  বালিশ চাপা দিয়ে রাসেল এবং সিয়াম দুই বন্ধু মিলে শিশু ইয়ামিনকে হত্যা করে।

 

এমটিকে//বাংলারচোখ

শেয়ার করুন...

আরও খবর...
© All rights reserved © 2021 | বাংলার চোখ নিউজ
Theme Customized BY LatestNews