1. [email protected] : mainadmin :
  2. [email protected] : special_reporter :
  3. [email protected] : subadmin :
বাংলার চোখ নিউজ | অনলাইন সংস্করণ | বোরো ধান রোপনে ব্যস্ত কৃষকরা
শনিবার, ২৫ জুন ২০২২, ০৮:১৭ অপরাহ্ন

বোরো ধান রোপনে ব্যস্ত কৃষকরা

বাংলার চোখ সংবাদ
  • সময়ঃ শনিবার, ২২ জানুয়ারী, ২০২২

সেলিম রেজা :

সিরাজগঞ্জ উল্লাপাড়ায় কৃষকেরা কুয়াশামাখা সকালে বোরো আবাদ চাষাবাদে ব্যস্ত সময় পার করছেন। সম্প্রতি কয়েক বছর হলো ধানের দাম ভালো পাওয়ায় এ মৌসুমে বোরো চাষে তাদের মাঝে বেশ উৎসাহ উদ্দীপনা লক্ষ্য করা যাচ্ছে। বর্তমানে বিস্তীর্ণ ফসলের মাঠে ধানের কচি চারার সবুজ গালিচা, কোথাও কোথাও গভীর নলকূপ থেকে চলছে পানিসেচ, ট্রাক্টর, পাওয়ার টিলার দিয়ে জমি চাষের কাজ, গরু-মহিষ ও মানুষের দ্বারা মই দিয়ে চলছে মাঠ সমান করার কাজ। আবার বোরো ধান রোপণের জন্য বীজতলা থেকে তোলা হচ্ছে ধানের চারা।

কৃষকদের শরীরে রয়েছে হালকা শীতের পোষাক, মাথায় গরম কাপড়। কৃষাণ-কৃষাণীরা রয়েছে ফুরফুরে মেজাজে। কেউবা জমিতে হাল চাষ দিচ্ছেন, কেউ জমির আইলে কোদাল মাড়ছে, কেউ জৈব সার দিতে ব্যস্ত, আবার কেউ সেচের জন্য ড্রেন নির্মাণ কিংবা পাম্পের বা শ্যালো মেশিনের জন্য ঘর তৈরি করছেন। আবার অনেকে তৈরি জমিতে পানি সেচ দিয়ে ভিজিয়ে রাখছেন, কেউ আবার বীজতলা থেকে ধানের চারা তুলে তা রোপণ করছেন।

বছরের প্রধান আবাদের নানা জাতের বোরো ধান চারা কৃষকেরা লাগাচ্ছেন। উপজেলা কৃষি অফিস বলছে, এবারের মৌসুমে উল্লাপাড়া উপজেলায় ৩০ হাজার ২৪০ হেক্টর পরিমাণ জমিতে বোরো ধান আবাদের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। এরই মধ্যে ৫শ ৪০ হেক্টর পরিমাণ জমিতে বোরো ধানের চারা লাগানো হয়েছে। উল্লাপাড়ায় কৃষকরা বেশী হারে ফলনশীল ব্রি ৮৪, ব্রি ৮৬, ব্রি ৮৯, ব্রি ৯২ হাইব্রিড জাতের ধানসহ নানা জাতের বোরো ধান আবাদ করে থাকেন। এবারেও তাই হবে বলে জানানো হয়। উপজেলার সব ক’টি ইউনিয়নের সব মাঠেই এ ধানের আবাদ করা হয়ে থাকে। উপজেলার সলঙ্গায় হাটিকুমরুল ইউনিয়নের বেশীর ভাগ মাঠে কৃষকেরা রোপা আমন ধানের আবাদ করেছিলেন। মাঠগুলো থেকে সে ধান কাটা প্রায় শেষ হয়ে এসেছে,, উপজেলার হাটিকুমরুল ইউনিয়ন এলাকার বিভিন্ন মাঠে বোরো ধান চারা লাগানো হচ্ছে। এসব মাঠ থেকে সপ্তাহ তিনেক আগেই রোপা আমন ধান কেটে কৃষকেরা ঘরে তুলেছেন।

এখন বোরো ধান আবাদ করা হচ্ছে। এদিকে উপজেলার উধুনিয়া, বাঙ্গালা, পূর্ণিমাগাঁতী, বড় পাঙ্গাসী, মোহনপুর ইউনিয়ন এলাকার মাঠগুলোয় সরিষা ফসল রয়েছে। কৃষকেরা সরিষা ফসল তুলেই জমিতে বোরো ধান আবাদে চারা লাগাবেন, বোরো ধান আবাদে বেশীর ভাগ কৃষক নিজস্ব বীজতলা করেছেন। অনেক কৃষক বেশী হারে ফলন মেলে এমন উন্নত নতুন নানা জাতের ধানের বীজতলা করেছেন বলে জানা গেছে। উপজেলার হাটিকুমরুল ইউনিয়নের পাটধারী মাঠে বোরো ধান আবাদ শুরু হয়েছে।

কৃষক শামছুল মন্ডল প্রায় এক বিঘা পরিমাণ জমিতে নিজস্ব বীজতলার কাটারী ভোগ ধানের চারা লাগাতে দেখা গেছে। তিনি বলেন, জমিতে রোপা আমন ধানের কাটার পর সপ্তাহ তিনেক পতিত রাখা হয়েছিল। এখন আগাম করেই বোরো ধানের আবাদে চারা লাগাচ্ছেন। একই মাঠে আটশো টাকা বিঘা চুক্তিতে ধান চারা লাগাতে দেখা গেছে। তিনি একাই এক বিঘা পরিমাণ জমিতে ধান চারা লাগাতে পারেন বলে জানান।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সূবর্ণা ইয়াসমিন সুমী বলেন, তার বিভাগ থেকে কৃষকদেরকে এল এল পি পদ্ধতি অর্থাৎ লাইন করে ধান চারা লাগাতে পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে, এ পদ্ধতিতে বোরো ধান চারা লাগানো হলে ফসলটির আবাদে কৃষকদের সব দিক থেকেই উপকার মেলে।

 

//এমটিকে

শেয়ার করুন...

আরও খবর...
© All rights reserved © 2021 | বাংলার চোখ নিউজ
Theme Customized BY LatestNews