1. [email protected] : mainadmin :
  2. [email protected] : Mohsin Molla : Mohsin Molla
  3. [email protected] : subadmin :
বাংলার চোখ নিউজ | অনলাইন সংস্করণ | লকডাউনের প্রথম দিনে সাতক্ষীরার কলারোয়ায় রেকর্ড ১৮ জন সনাক্ত
শনিবার, ১৯ জুন ২০২১, ০৫:৩২ পূর্বাহ্ন

লকডাউনের প্রথম দিনে সাতক্ষীরার কলারোয়ায় রেকর্ড ১৮ জন সনাক্ত

বাংলার চোখ সংবাদ
  • সময়ঃ রবিবার, ৬ জুন, ২০২১

মোস্তাক আহমেদ (সাতক্ষীরা) জেলা প্রতিনিধি :

করোনা আতংকে দেশের সীমান্ত উপজেলা সাতক্ষীরার কলারোয়াসহ জেলাব্যাপী করোনা সংক্রমন প্রতিরোধে কঠোর বিধি-নিষেধ আরোপ করে লকডাউন দিয়েছে জেলা প্রশাসন। শনিবার (৫ জুন) থেকে ৭দিনের জন্য শুরু হয়েছে এই বিশেষ লকডাউন। সকাল থেকে দ‚রপাল্লা কিংবা আন্ত:জেলা বাস চলাচল বন্ধ রয়েছে। বন্ধ রয়েছে সরকারি-বেসরকারি অফিস, মার্কেট, দোকানপাট। তবে বন্ধ নেই ইজিবাইক, মহেন্দ্র ও স্থানীয় যানবাহন। রীতিমতো ঠেসাঠেসি করে যাত্রী নিয়ে মহাসড়কসহ স্থানীয় গ্রামাঞ্চলের রুটে হরহামেশা চলতে দেখা গেছে এসব অবৈধ যানবাহনকে।

এদিকে লকডাউনের প্রথম দিনেই কলারোয়ায় একদিনে সনাক্তের সর্বোচ্চ ১৮জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এরমধ্যে কলারোয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের এক ডাক্তার রয়েছেন। শনিবার (৫ জুন) তাদের করোনা পজেটিভ রিপোর্ট এসেছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা, জিয়াউর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, গত বৃহষ্পতিবার কলারোয়া ও সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নমুনা দেয়ার পর শনিবার ১৮জনের করোনা পজেটিভ রিপোর্ট এসেছে।

নতুন করে করোনা আক্রান্তরা হলেন, উপজেলার সোনাবাড়িয়া ইউনিয়নের শ্রীরামপুর গ্রামের ঝর্ণা পারভীন (৩৮), সোনাবাড়িয়া ইউনিয়নের শহিদুল ইসলাম (৫৮), কলারোয়া পৌরসভার তুলশীডাঙ্গা গ্রামের হাসান বাশার (৩৬), কয়লা ইউনিয়নের হালিমা খাতুন (৩৫), সোনাবাড়িয়া ইউনিয়নের বেলি গ্রামের আল নাজিব মাহফুজ(১৭), কেরালকাতা ইউনিয়নের গোরদোপুরের জামাল উদ্দীন (৪২), উপজেলা আনসার ভিডিডির সদস্য মো: আবদার (২৫), কলারোয়া পৌরসভার রেহেলা (৬০), ঝিকরার হালিমা খাতুন (২৪), একই গ্রামের ডা.সিরাজুল হক (৬২), তুলশীডাঙ্গার আলেয়া বেগম (৫৪), কুশোডাঙ্গা ইউনিয়নের আশরাফুল (৩৬), কলারোয়ার মির্জাপুরের শামছুন নাহার (৫৯), চন্দনপুর ইউনিয়নের রামভদ্রপুর গ্রামের আকরাম আলী, একই গ্রামের আসিফ ইকবাল (২৩), উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ডা. আসিফ আহমেদ (২৯), জয়নগরের ফরহাদ (৩১) ও ধানদিয়ার অরুন দাস।

কলারোয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. জিয়াউর রহমান জানান, করোনা আক্রান্তদের বাড়ি লকডাউন করা হযেছে। একইসাথে তাদের সার্বক্ষনিক স্বাস্থ্যসেবা ও পরামর্শ প্রদান করা হচ্ছে। জনসচেতনতার উপর গুরুত্বারোপ করে তিনি আরো বলেন, পরিপ‚র্ণ স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা, মাস্ক পরিধান ও সামাজিক দ‚রত্ব নিশ্চিত করার মাধ্যমে করোনার প্রাদুর্ভাব হ্রাস করা সম্ভব।

 

এমটিকে/বাংলারচোখ

সামাজিক মাধ্যমগুলোতে শেয়ার করুন...

Leave a Reply

এই বিভাগের আরও খবর...
© All rights reserved © 2021 www.banglarchokhnews.com  
Theme Customized BY LatestNews