1. [email protected] : mainadmin :
  2. [email protected] : Mohsin Molla : Mohsin Molla
  3. [email protected] : subadmin :
বাংলার চোখ নিউজ | অনলাইন সংস্করণ | শ্রীনগরে সেতুর মুখ বন্ধ করে মাটি ভরাট ও ভবন নির্মাণ
মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০১:২৯ পূর্বাহ্ন

শ্রীনগরে সেতুর মুখ বন্ধ করে মাটি ভরাট ও ভবন নির্মাণ

বাংলার চোখ সংবাদ
  • সময়ঃ মঙ্গলবার, ৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১

শরিফুল খান প্লাবন :

মুন্সিগঞ্জের শ্রীনগর উপজেলার শ্যামসিদ্ধি ইউনিয়নের গাদিঘাটের তালুকদার বাড়ি সংলগ্ন সড়কের ওপর একটি গুরুত্বপূর্ণ সেতু দখল করে মাটি ভরাট ও সেতুর রেলিংসহ সড়কের জায়গা দখল করে বহুতল ভবন নির্মাণ করা হচ্ছে। এতে করে ওই এলাকার পানি প্রবাহের রাস্তা বন্ধ হয়ে পড়ায় শত শত কৃষি জমিতে জলাবদ্ধতার আশঙ্কা করা হচ্ছে।

মাটি ভরাটের কারণে একদিকে যেমন পানি চলাচল বন্ধ হয়েছে। অপরদিকে সেতুটির রেলিং ও সড়কের অতিরিক্ত জায়গা দখল করে ব্যক্তিগত নির্মাণাধীন ভবনের পিলার করায় সেতু পারাপারে ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠেছে। গাদিঘাট গ্রামের মোঃ মান্নান মুক্তারের বিরুদ্ধে সেতুর সামনে মাটি ভরাট করা ও তার চাচাত ভাই শহিদুল তালুকদারের বিরুদ্ধে সেতুর রেলিংসহ সড়ক দখল করে ভবন নির্মাণের অভিযোগ উঠে। তারা এলাকায় প্রভাবশালী হওয়ায় প্রকাশ্যে কেউই মুখ খুলতে সাহস পান না।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, গাদিঘাট বাজারের সামান্য পূর্ব দিকে ব্যস্ততম পাকা সড়কটির তালুকদার বাড়ির সামনে সেতুর উত্তর পাশে মাটি ভরাট করা হয়েছে। এতে বর্ষার পানি চলাচলে বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। এছাড়া সেতুর একই পাশে সড়কের জায়াগা ও সেতুর রেলিং দখল করে একটি পাকা ভবন নির্মাণ করা হচ্ছে।

দেখা যায়, এতে মালবাহী যানবাহন সেতু পারাপারে অনেকটাই ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠেছে।

জানা গেছে, গাদিঘাটের মিয়াজ উদ্দিন তালুকদারের পুত্র মোঃ মান্নান মুক্তার সেতুটির মুখ আটকিয়ে মাটি ভরাট করেছেন। এছাড়া ইয়াজউদ্দিনের পুত্র শহিদুল তালুকদার একটি ভবন নির্মাণের জন্য সড়কসহ সেতুর রেলিং পর্যন্ত দখল করছেন। ভবনের ঝুলন্ত বারান্দাটি এখন সেতুর ওপরে এসে পড়েছে।

স্থানীয়রা জানায়, মান্নান মুক্তার সেতুটির সামনে ভরাট করায় নৌকা চলাচলের এই পথ দিয়ে এলাকার কৃষকরা আড়িয়াল বিলে নৌকা নিয়ে যেতে পারছেন না। কৃষি কাজেকর্মে বিলে যেতে হলে অনেক পথ ঘুরে তাদের যেতে হচ্ছে। এছাড়া পানি চলাচলের পথ বন্ধ থাকায় এখানকার কৃষি জমি জমিতে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হবে। এ নিয়ে তারা দুশ্চিন্তায় ভুগছেন।

এলাকাবাসী আরো জানায়, মান্নান মুক্তারের চাচাত ভাই শহিদুল রাস্তাসহ সেতু ঘেষে বিল্ডিং নির্মাণ করছেন।

শহিদুল তালুকদারের কাছে এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিরা উপস্থিত থেকে আমার জায়গা মেপে সীমানা নির্ধারণ করে দিয়ে গেছেন। তিনি দাবি করেন সেতুর মাঝখান পর্যন্ত তার বসতবাড়ির সীমানা। তাই তিনি সড়কের অতিরিক্ত জায়গাসহ সেতু ঘেষে ভবন নির্মাণ করছেন। সেতুর মুখ বন্ধ করে মাটি ভরাটের বিষয়ে জানতে মোঃ মান্নান মুক্তারের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তার সাথে কথা বলা সম্ভব হয়নি।

একটি সূত্র জানায়, শহিদুল তালুকদার ও মান্নান মুক্তার এলাকায় প্রভাবশালী তাই কেউ তাদের বিরুদ্ধে মুখ খুলতে চান না। তারা স্থানীয় আমিন ডেকে নিজেদের জায়গা জমি পরিমাপ করে গুরুত্বপূর্ণ সেতু ভরাট ও দখল করে ভবন নির্মাণ করতে পারেন না! পানি নিস্কাশন ব্যবস্থা বন্ধ থাকায় শত শত কৃষি জমি জলাবদ্ধতা আশঙ্কায় দুশ্চিন্তায় পড়েছেন কৃষক। এছাড়া সেতুর এ্যাপ্রোচ, রেলিংসহ সড়ক দখল করে ভবন নির্মাণ করা হচ্ছে। তাদের এ ধরণের কর্মকান্ডে এলাকাবাসী হতাশ।

এ ব্যাপারে শ্রীনগর উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) ও ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী অফিসার ব্যারিস্টার মোঃ সজিব আহম্মেদ জানান, এরই মধ্যে সার্বেয়ারকে ঘটনাস্থলে পাঠানো হয়েছে। বিষয়টি জানার পরে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এমটিকে/বাংলারচোখ

শেয়ার করুন...

Leave a Reply

আরও খবর...
© All rights reserved © 2021 | বাংলার চোখ নিউজ  
Theme Customized BY LatestNews